ক্লিক সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪

ক্লিক সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪

ক্লিক সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪: বাংলাদেশে আমাদের ঘরে ও অফিসে সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত ফ্যান হল সিলিং ফ্যান। এটি সাধারণত ছাদে সেট করা হয়; ফলে, এটি তার চারপাশের সম্পূর্ণ এলাকায় বাতাস দিতে পারে। প্রায় সব ঘরেই এটি দেখা যায় এবং মধ্যবিত্ত মানুষের দ্বারা ব্যাপকভাবে ব্যবহৃত হয়। এই ফ্যানটি অত্যন্ত উপকারী। গ্রীষ্মে আমাদের ঘরগুলো খুব গরম হয়ে যায় এবং ফলে মানুষ দীর্ঘসময় ধরে একটি ঘরে থাকলে অসহ্য যন্ত্রণা অনুভব করে। কখনো কখনো একটি ঘরে কোনো জানালাও না থাকায় মৃত্যুর মতো অবস্থা সৃষ্টি হয়। এমন স্থানে সিলিং ফ্যান একটি খুবই উপযুক্ত জিনিস হতে পারে। এটি শীতল বাতাস ভেতরে নিয়ে আসে এবং ঘরকে আরামদায়ক রাখে। এই গরমে ফ্যানের চাহিদা দিন দিন হুহু করে বাড়ছে। আর ফ্যানের মধ্যে সিলিং ফ্যানের চাহিদা অন্যতম। বাজারে যতগুলো কোম্পানি রয়েছে তাদের মধ্যে ক্লিক অন্যতম। ক্লিকের পণ্যের গুনগত মান অন্যান্য ইলেকট্রনিক কোম্পানি থেকে আলাদা করেছে।

ক্লিক ফ্যান তৈরির উপাদান:

ক্লিক ব্র্যান্ডের প্রতিটি ফ্যান উচ্চমানের কাঁচামাল দিয়ে নির্মিত, যার ফলে এর মান অটুট থাকে। নিজেদের কারখানায় নির্মিত, ৯৯.৯৯% খাঁটি কপার ব্যবহার করে নির্মিত আর্মেচার জ্বলে যাওয়ার সম্ভাবনা কমিয়ে দেয়। উন্নত মানের বিয়ারিং ব্যবহার করা হয়, যার ফলে ফ্যানের ঘূর্ণন অত্যন্ত মসৃণ হয়। ফ্যানের রোটর এবং স্ট্রেটর তৈরিতে ব্যবহৃত হয় কোরিয়া থেকে আমদানিকৃত বিশেষ “লো হিস্টেরেসিস লস” সিলিকন শিট, যা দীর্ঘস্থায়ী ঘূর্ণনের পরও মোটরকে শীতল রাখে। খাঁটি অ্যালুমিনিয়াম দিয়ে নির্মিত এরোডায়নামিক ব্লেডগুলি আকাশে বাতাসের স্রোত সমানভাবে ছড়িয়ে দেয়। ফ্যানের দীর্ঘস্থায়ী বডি নিশ্চিত করতে আমদানিকৃত অ্যালুমিনিয়াম ইনগট ব্যবহার করা হয়। পুরো ফ্যানের উপর অটোমেটিক কোটিং প্রক্রিয়া মরিচাপ্রতিরোধী একটি পারফেক্ট ফিনিশ নিশ্চিত করে। প্যাকেজিং করার আগে, প্রতিটি ফ্যানের গতি (RPM) পরীক্ষা, ভোল্টেজ টেস্ট, এবং একটি সাউন্ডপ্রুফ ঘরে শব্দ পরীক্ষা করা হয়। অটোমেটিক বেন্ড টেস্টিং মেশিন দ্বারা প্রতিটি ফ্যানের ব্লেডের বেন্ড অ্যাঙ্গেল নির্ণয় করা হয়, যা এর নিখুঁত কার্যকারিতা নিশ্চিত করে।

আপনি কি ব্যবসায়ের নতুন আইডিয়া পেতে চান তাহলে ভিজিট করুন: Wikiger.Com. মোবাইল ফোনের সকল আপডেট পেতে ভিডিট করুন: iTunesBD.Com । ফ্রি বই পড়তে চাইলে ভিজিট করুন: পিডিএফ আর্কাইভ বিডি

    
ওয়ালটন সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪ওয়ালটন চার্জার ফ্যানের দাম ২০২৪

ক্লিক সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪ ও তালিকা:

ফ্যানের নাম: Click Green Fan 56” EcoStar Series White – বর্তমান মূল্য: ৩০৮৩ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Orbit Ceiling Fan 16″ – বর্তমান মূল্য: ২৯৭৫ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Crown Ceiling Fan 48” Ivory – বর্তমান মূল্য: ২,৫৯৭ টাকা।

ফ্যানের নাম: Click Crown Ceiling Fan 56” White – বর্তমান মূল্য: ২,৯২৫ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Crown Ceiling Fan 24” White – বর্তমান মূল্য: ২৩১৩ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Crown Ceiling Fan 36” Ivory – বর্তমান মূল্য: ২৩১৩ টাকা।

ফ্যানের নাম: Click Crown Ceiling Fan Ivory Gold 56″ – বর্তমান মূল্য: ২৯৯০ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Glamour Ceiling Fan 56″ – বর্তমান মূল্য: ৩,৫২০ টাকা।

ফ্যানের নাম: Click Crown Ceiling Fan Ivory Gold 56 – বর্তমান মূল্য: ৩,২৫০ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Camellia Ceiling Fan 56” Ivory Gold – বর্তমান মূল্য: ৪,২০০ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Crown Ceiling Fan 48” Ivory – বর্তমান মূল্য: ২,৮৮৫ টাকা।

ফ্যানের নাম: CLICK Power Saver Ceiling Fan 56” – বর্তমান মূল্য: ৫৯৮১ টাকা।

বিআরবি সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪ন্যাশনাল সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪সুপার স্টার ফ্যান দাম ২০২৪

সিলিং ফ্যান কেন কিনবেন?

ঘরের তাপ নিয়ন্ত্রণের জন্য এয়ার কন্ডিশনার কেনা সেরা সমাধান হতে পারে, কিন্তু এটি একটি ব্যয়বহুল বিষয় এবং সবাই এটি কিনতে পারে না। কিন্তু সিলিং ফ্যানের দাম তেমন বেশি নয়। যে কেউ এটি কিনতে পারে। অনেক পরিবার এবং অফিস একসাথে অনেক মানুষের মধ্যে বাতাস প্রবাহিত করার জন্য সিলিং ফ্যান ব্যবহার করে। এই ফ্যান তার পরিসরের মধ্যে থাকা একটি পুরো ঘরের মানুষের কাছে বাতাস প্রবাহিত করতে পারে।

বাংলাদেশসহ সারা বিশ্বের তাপমাত্রা দ্রুত বৃদ্ধি পাচ্ছে। গ্রীষ্মকাল অসহ্য গরম হয়ে ওঠে। গ্রীষ্মের মৌসুম শেষ হওয়ার পরেও, গরমের প্রভাব মাসের পর মাস বিরাজ করে। বাংলাদেশের অনেক শহর, যেমন ঢাকা এবং রাজশাহীর মানুষ সারা গ্রীষ্ম এবং গ্রীষ্মের শেষের কয়েক মাস প্রচণ্ড গরমে ভোগে। আমাদের বাড়ি ও কর্পোরেট ভবনগুলি সংকীর্ণ এবং ঢাকা শহরের মতো শহরগুলি এবং গাজীপুর এবং নারায়ণগঞ্জের মতো শহরগুলিতে হাজার হাজার শিল্প ভবন রয়েছে। ভবনগুলির সংকীর্ণ নির্মাণ এবং পরিবেশ দূষণের কারণে, এসব ভবনে বসবাসকারী ব্যক্তিরা প্রচণ্ড গরমে ভোগেন। কখনো কখনো বৃদ্ধ মানুষেরা গরমের আঘাতে মারা যায়।

প্রযুক্তি এ ধরনের সমস্যার সমাধানে আমাদের কিছু উপায় দিয়েছে। সিলিং ফ্যান তার মধ্যে একটি এবং এটি খুবই কার্যকর। একটি ভালো সিলিং ফ্যান ব্যবহার করে, আপনি ঘরকে শীতল রাখতে পারেন। যখন একটি ঘর দীর্ঘ সময় ধরে বন্ধ থাকে, তখন তা গরম হয়ে যায়, কিন্তু যদি আপনি একটি সিলিং ফ্যান চালান, তাহলে ঘরটি ঠাণ্ডা হয়ে যাবে।

ক্লিক সিলিং ফ্যানের বৈশিষ্ট:

ক্লিক সিলিং ফ্যান কেবল আমাদের ঘরকে শীতল করে না, বরং ঘরের সাজসজ্জার একটি অংশ হয়ে উঠেছে। তাহলে, চলুন একটু গভীরে গিয়ে দেখি, এই ক্লিক সিলিং ফ্যান কেন এত জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে।

প্রথমত, ক্লিক সিলিং ফ্যানের ডিজাইন সত্যিই চোখ ধাঁধানো। এর মধ্যে রয়েছে বিভিন্ন রং এবং স্টাইল, যা কিনা ঘরের অন্যান্য সাজসজ্জা সামগ্রীর সাথে দারুণ মানানসই করে। অর্থাৎ, আপনি যদি আপনার ঘরের সাজসজ্জায় একটি মডার্ন টাচ যোগ করতে চান, তবে ক্লিক সিলিং ফ্যান একটি অসাধারণ বিকল্প।

দ্বিতীয়ত, এর কার্যকারিতা সম্পর্কে কথা বললে, ক্লিক সিলিং ফ্যান অত্যন্ত শক্তিসাশ্রয়ী। এই ফ্যানগুলি তৈরি হয়েছে এমনভাবে যে, এগুলি কম বিদ্যুৎ খরচ করে সর্বোচ্চ হাওয়া দিতে পারে। ফলে, আপনি যদি বিদ্যুৎ বিল কমানোর পথ খুঁজছেন, তবে ক্লিক সিলিং ফ্যান আপনার জন্য একটি পারফেক্ট সমাধান হতে পারে।

তৃতীয়ত, ইন্সটলেশন প্রক্রিয়া খুবই সহজ। অনেকেই ভাবেন, সিলিং ফ্যান লাগানো একটি জটিল প্রক্রিয়া, কিন্তু ক্লিক সিলিং ফ্যানের ক্ষেত্রে এমনটা নয়। এর সাথে প্রদান করা ম্যানুয়াল এবং অনলাইন টিউটোরিয়ালগুলি সহজেই বুঝে নিতে পারেন যে কীভাবে নিজেরাই ফ্যান লাগানো যায়।

চতুর্থত, ক্লিক সিলিং ফ্যানের শব্দমাত্রা খুবই কম। অনেক সময় ফ্যানের আওয়াজে ঘুম ভেঙে যায়, কিন্তু এই ফ্যান চালালে এমন সমস্যা হয় না। এর নীরব প্রকৃতি নিশ্চিত করে যে আপনি একটি শান্ত পরিবেশে আরামে থাকতে পারবেন।

সবশেষে, ক্লিক সিলিং ফ্যান অত্যন্ত টেকসই। এর উচ্চমানের উপাদান এবং নির্মাণ প্রক্রিয়া নিশ্চিত করে যে ফ্যানটি বহু বছর ধরে সেবা দেবে। অর্থাৎ, একবার কিনলে, আপনি অনেক দিন ধরে এর সুবিধা উপভোগ করতে পারবেন।

তো, এসব কথা বলার পর, বোঝাই যাচ্ছে যে ক্লিক সিলিং ফ্যান কেন এত জনপ্রিয়। এর ডিজাইন, কার্যকারিতা, ইন্সটলেশন সহজতা, নীরবতা, এবং টেকসইতা একে বাজারের অন্যান্য ফ্যানগুলির থেকে আলাদা করে তোলে। সুতরাং, যদি আপনি আপনার ঘরের জন্য একটি সিলিং ফ্যান খুঁজছেন, তবে ক্লিক সিলিং ফ্যান নিশ্চিতভাবে বিবেচনা করার মতো।

বি:দ্র: ক্লিক সিলিং ফ্যানের দাম ২০২৪ সম্পর্কে আপনাকে যে তথ্য এখানে শেয়ার করা হয়েছে সেটা পণ্য ক্রয়ের পূর্বে অবশ্যই দরদাম যাছাই করবেন এবং কোম্পানির নিজস্ব শোরুম থেকে কিনবেন। আমাদের দেওয়া তথ্য সম্পর্কে আপনার মূল্যবান মতামত দিতে অবশ্যই কমেন্ট করবেন। ধন্যবাদ

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *