ওয়ালটন রুম হিটারের দাম ২০২৩

ওয়ালটন রুম হিটারের দাম ২০২৪

ওয়ালটন রুম হিটারের দাম ২০২৪: রুম হিটার শীতের জন্য আরাম দায়ক একটি ইলিকট্রনিক প্রডাক্ট । অনেকে শীতে তাদের ঘরগুলিতে রুম হিটার ব্যবহার করছেন, এটি একটি সামান্য ব্যবস্থা যা তাদের ঘরকে তাৎক্ষণিকভাবে গরম করতে সাহায্য করে। ওয়ালটন রুম হিটার বর্তমানে এই শীতের মৌসুমে ব্যপক ভাবে সমাদৃত সকলের কাছে । ওয়ালটনের সকল ইলেকট্রনিক্স পণ্য দেশের বাজার ছাড়িয়ে এখন বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মধ্যে রপ্তানি হচ্ছে। বর্তমানের প্রযুক্তিগত উন্নয়নের ফলে ওয়ালটনের পন্য সকলের গ্রহণযোগ্যতা পাচ্ছে। বিশ্বের উন্নত দেশগুলোর মতো বাংলাদেশেও এখন শীতকালে রুম হিটার ব্যবহারের প্রচলন বেড়েছে। তবে এই প্রডাক্টটি ব্যবহারে আপনাকে যথেষ্ট সতকর্তা অবলম্বন করতে হবে। অনেকেই হয়ত শীতের শুরুতেই এটির ব্যবহার শুরু করছেন। প্রতিটি লেটেস্ট মডেলের হিটারের ভেতরেই গরম করার জন্য ধাতুর পাত বা সিরামিক কোর থাকে। হিটারের ক্ষমতা বা ওয়াট যত বেশি হবে, তার সাথে সাথে এর তাপমাত্রা ও বেড়ে যাবে।

ওয়ালটন রুম হিটারের দাম

যারা প্রথমবারের মতো রুম হিটার কিনবেন, তাদের বেশিরভাগই জানেন না কোন কোম্পানির হিটার ভালো হবে ও কম দামের মধ্যে কোনটি ভালো সার্ভিস দেবে। তবে আপনি ১৫০০ টাকা থেকে ৪০০০ টাকার মধ্যে ১ রুমের জন্য ভাল মানের একটি রুম হিটার কিনতে পারবেন।

বিসিএস, ব্যাংক সহ অন্যান্য চাকুরির পরীক্ষার প্রস্তুতির জন্য ফ্রি পিডিএফ বই এখানে ; পিডিএফ আর্কাইভ বিডিমিয়াকো গ্যাসের চুলার দাম ২০২৪ওয়ালটন জেনারেটরের দাম ২০২৪

রুম হিটার ব্যবহারের নিয়ম

রুম হিটার চালানোর পর ঘরটি শীতকালে সুগম ও আরামদায়ক থাকতে থাকে। যখন ঘরে পর্যাপ্ত গরম হয়, তখন সতর্কতার সাথে রুম হিটার বন্ধ করতে হবে। শিশুদের নাগালের বাইরে এটি রাখা গুরুত্বপূর্ণ। হিটারটি ঠান্ডা থাকা কারণে তার সাথে খেলাধুলা বা নাগালে কোনো ঝুঁকি না হয়, এবং ঘরের ফাঁকা অংশে তার প্রদাহ হয়। দরজা-জানালায় যদি ফাটল বা ছিদ্র থাকে, তাদের মুক্ত করে দিন এবং তারপরে হিটার চালু করুন। রুম হিটারটি এককভাবে ৩-৪ ঘণ্টা চালানোর পর মাঝে মাঝে বন্ধ করলেই কাজে লাগতে পারে। সব সময় চালিয়ে রাখলে বিদ্যুৎ বিল বাড়তে পারে এবং আপনি শারীরিক সমস্যার মুখোমুখি হতে পারেন।

রুম হিটারের ক্ষতিকর দিক

প্রতিদিন হিটার ব্যবহার করার ফলে – কাশি, মাথা ব্যথা, বমি অথবা গা গোলানো, চোখ শুকিয়ে যাওয়া, নাক বন্ধ হওয়া, শ্বাস-প্রশ্বাস সংক্রান্ত সমস্যার ঝুঁকি, এবং অ্যাজমা রোগীদের জন্য বিপজ্জনক হতে পারে। হ্যালোজেন হিটার থেকে বিভিন্ন রকমের রাসায়নিক পদার্থ মুক্ত হতে পারে, যা হাঁপানি এবং অ্যালার্জির মতো সমস্যার কারণ হতে পারে।

ওয়ালটন রুম হিটারের দাম ২০২৪ ও তালিকা:

১। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-FH002 – বর্তমান মূল্য: ১৪৫২ টাকা।

২। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-FH003 – বর্তমান মূল্য: ২০৮৬ টাকা।

৩। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC0X – বর্তমান মূল্য: ২৩৫৮ টাকা।

৪। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC205T – বর্তমান মূল্য: ৩,৮২৮ টাকা।

৫। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC001 – বর্তমান মূল্য: ২২৮৮ টাকা।

৬। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC006 – বর্তমান মূল্য: ২২৪৪ টাকা।

৭। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC007 – বর্তমান মূল্য: ১৭১৬ টাকা।

৮। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC009 – বর্তমান মূল্য: ১৮৪৮ টাকা।

৯। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC203T – বর্তমান মূল্য: ৩৯৬০ টাকা।

১০। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC301W – বর্তমান মূল্য: ৪১৩৬ টাকা।

১১। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC003 – বর্তমান মূল্য: ২২০০ টাকা।

১২। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC004 – বর্তমান মূল্য: ২৮১৬ টাকা।

১৩। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC204T – বর্তমান মূল্য: ৩১৬৮ টাকা।

১৪। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC202 – বর্তমান মূল্য: ৩০৮০ টাকা।

১৫। ওয়ালটন রুম হিটারের নাম: WRH-PTC002 বর্তমান মূল্য: ৩২১৫ টাকা।

 হিটারের নাম : ওয়ালটন WRH-PTC301W 

ওয়ালটন WRH-PTC301W

বর্তমান মূল্য : ৪, ১৩৬ টাকা।

এই শীতে আপনার আপনার গিজারের প্রয়োজনে : ওয়ালটন গিজারের দাম ২০২৩

– PTC গরম করার উপাদান
– হিটারটি ডাবল হিটিং পাওয়ার সেটিং- 1000/2000W
– শীতল বাতাসের জন্য ফ্যান মোড।
– বিল্ট ইন টাইমার ৮ ঘন্টা পর্যন্ত।
– হিটারটির মধ্যে রয়েছ শীতল বাতাসের জন্য ফ্যান মোড।
– অতিরিক্ত তাপ থেকে সুরক্ষা পাওয়ার ব্যবস্থা
– সেফটি টিপ – ওভার সুইচ
– সামঞ্জস্যযোগ্য oscillating ফাংশন
– রিমোট কন্ট্রোল সুবিধা সহ
– এলইডি :  ডিসপ্লে

– রেটেড ভোল্টেজ: ২২০-২৪০ ভোল্ট
– রেটেড ফ্রিকোয়েন্সি: ৫০ হার্জ
– রেটেড পাওয়ার: ২০০০ ওয়াট

ব্যবসায়ের নতুন আইডিয়া: উইকিগার

হিটারের নাম : ওয়ালটন WRH-PTC202  

ওয়ালটন WRH-PTC202

বর্তমান মূল্য : ৩,০৮০ টাকা

– পিটিসি সিরামিক গরম করার উপাদান।
– উচ্চ গরম করার দক্ষতা
– তাপমাত্রা স্তর নির্বাচন
– অসিলেটিং ফাংশন
– সর্বোচ্চ শক্তি : ২০০০ ওয়াট

– দুই গতির সেটিং
– শীতল এবং উষ্ণ বাতাসের বিকল্প
– অতিরিক্ত তাপ সুরক্ষা
– ২ হিট সেটিংস: ১০০০ ওয়াট/ ১৫০০ ওয়াট
– তাপমাত্রা স্তর নির্বাচন (১০০০ ওয়াট/ ২০০০ ওয়াট)
– ৯০কোণ দোদুল্যমান বায়ু
– সুইচ ওভার নিরাপত্তা টিপ

– রেটেড ভোল্টেজ: ২২০-২৪০ ভোল্ট
– রেটেড ফ্রিকোয়েন্সি: ৫০ হার্জ
– সর্বোচ্চ পাওয়ার: ২০০০ ওয়াট

ওয়ারেন্টি বিষয়ক তথ্য:

– প্রধান অংশের : ৬ মাস ওয়ারেন্টি
– খুচরা যন্ত্রাংশের: ৬ মাস ওয়ারেন্টি।

বিক্রয় পরবর্তী ৬ মাসের সার্ভিসিং।

হিটারের নাম : ওয়ালটন WRH-PTC0X

ওয়ালটন WRH-PTC0X

– বর্তমান মূল্য : ২,৩৫৮ টাকা
– পিটিসি সিরামিক গরম করার উপাদান
– সিকিউরিটি টিপ-ওভার সুইচ
– অতিরিক্ত তাপ সুরক্ষা থেকে সুরক্ষা
– ডাবল হিটিং পাওয়ার সেটিং
– উত্তপ্ত বায়ু সঞ্চালনের জন্য ফ্যান
– নিরাপত্তা থার্মাল কাট-আউট
– তাপমাত্রা সেটিংসের জন্য সামঞ্জস্যযোগ্য থার্মোস্ট্যাট

– রেটেড পাওয়ার: ১৫০০ ওয়াট
– পাওয়ার সাপ্লাই: ২২০-২৪০ ভোল্ট, ৫০ হার্জ।
– আয়তন :  (দৈর্ঘ*প্রস্থ*উচ্চতা): (১৫*৯.২*২১) সেমি
– ওজন: ০.৯ কেজি।

ওয়ারেন্টি বিষয়ক তথ্য:

– প্রধান অংশ: ৬ মাস
– খুচরা যন্ত্রাংশ: ৬ মাস

-বিক্রয় পরবর্তী ৬ মাসের সার্ভিসিং।

হিটারের নাম : ওয়ালটন WRH-PTC205T 

ওয়ালটন WRH-PTC205T

বর্তমান মূল্য : ৩,৮২৮ টাকা।
-পিটিসি হিটিং তারের উপাদান মিনি রুম হিটার।
– সামঞ্জস্যযোগ্য থার্মোস্ট্যাট
– নিরাপত্তা টিপ-ওভার সুইচ
– রেটেড ভোল্টেজ: ২২০-২৪০ ভোল্ট, ৫০ হার্টস।
– রেটেড পাওয়ার: ১০০০ ওয়াট/২০০০ ওয়াট
– সুবিধাজনক ব্যবহারের জন্য তিনটি সমন্বয় পছন্দ।
– সুরক্ষা অতিরিক্ত গরম করে সুরক্ষা৷
– সিকিউরিটি টিপ-ওভার সুইচ৷

 হিটারের নাম : ওয়ালটন WRH-PTC003

ওয়ালটন WRH-PTC003

– বর্তমান মূল্য : ২,২০০ টাকা

– পিটিসি সিরামিক গরম করার উপাদান।
– সামঞ্জস্যযোগ্য থার্মোস্ট্যাট নিয়ন্ত্রণ।
– পাওয়ার ইন্ডিকেটর লাইট।
– দুইটি হিট সেটিংস: ১০০০ ওয়াট/ ১৮০০ ওয়াট।
– সুরক্ষা অতিরিক্ত গরম করে সুরক্ষা৷
– দোলন উইং স্প্রেড তাপ প্রদান করে।
– পাওয়ার ইন্ডিকেটর লাইট।
– নিরাপত্তা টিপ-ওভার সুইচ৷৷  

ভিশন রাইস কুকারের দাম কত ২০২৩

হিটার ক্রয়ের পূর্বে অবশ্যই জানা দরকার:

১। আপনার রুম হিটার চালু করার পর ঘরের তাপমাত্রা গরম হতে থাকবে এবং পর্যাপ্ত গরম হলে হিটারটি বন্ধ করে দিন।

২। অবশ্যই রুম হিটারটি শিশুদের নাগালের বাইরে রাখুন তবে ঘরের ফাঁকা অংশে হিটার রাখাই বুদ্ধিমানের কাজ।

৩। আপনার ঘরের দরজা-জানালায় ফাটল কিংবা ছিদ্র থাকলে তবে সেটা বন্ধ করে তারপর হিটারটি চালু করুন।

৪। একটানা ৩-৪ ঘণ্টা এর বেশি রুম হিটারটি চালিয়ে রাখা উচিৎ নয়। সব সময় রুম হিটার চালিয়ে রাখলে বিদ্যুৎ বিলও যেমনি বাড়বে তেমনি আপনি শারীরিক বিভিন্ন সমস্যাতেও ভুগবেন।

আপনারা অবশ্যই অবগত আছেন, ইলেকট্রনিক্স পণ্য অধিক পরিমাণে ব্যবহার করলে কিছু পার্শ্ব-প্রতিক্রিয়া দেখা যায়। ঠিক তেমনই অতিরিক্ত রুম হিটার ব্যবহারেও আমাদের শরীরে কিছু সমস্যা দেখা দিতে পারে। যে সমস্যা হয় জেনে নিন –

  • এটির অত্যাধিক ব্যবহার ঘরের আর্দ্রতা কমে যায় ও ত্বকের শুষ্কতা বাড়ে।
  • যাদের শরীরে অ্যালার্জি বা সোরিয়াসিসের সমস্যা আছে তাদের শরীর চুলকাতে পারে।
  • কখনও ভুলেও হিটারের পাশে বসবেন না। বিশেষ করে, অ্যাজমার রোগীরা রুম হিটারের কারণে ক্ষতির মুখে পড়তে পারেন।
  • এছাড়াও যেসব রোগীদের ব্রঙ্কাইটিস ও সাইনাসের  এই যন্ত্রটি ব্যবহারের কারণে ফুসফুসে কফ জমাতে শুরু করে।
  • এ কারণে হাঁচি-কাশি হতে পারে। আবার ফুসফুসে জমে থাকা কফ শুকিয়ে যেতে পারে।

বি:দ্র: আপনি ওয়াটনের শোরুম / ই প্লাজা হতে কিনতে পারেন । তবে যেকোন কিছু ক্রয়ের পূর্বে বিভিন্ন রিভিও, দাম, কোয়ালিটি, সাইজ, কোম্পানির ব্রান্ড, টেকশই ইত্যাদি বিবেচনায় এনে তারপর পন্যটি ক্রয়ের সিদ্ধান্ত নেন।এত করে আপনি সহজে প্রতারিত হবেন না। আশা করি ওয়ালটন রুম হিটারের দাম ২০২৪ সম্পর্কে বিস্তারিত জানাতে পেরেছি। যদি আপনার কোন প্রশ্ন থাকে তাহলে আপনি কমেন্ট করে জানাতে পারেন। 

Similar Posts

One Comment

  1. বাংলাদেশী হোম এপ্লায়েন্স। বিবরণ দেখে নিজকে গর্বিত অনুব করছি। আমি কুমিল্লা থেকে। রুম হিটার পণ্যগুলি কুমিল্লার ওয়ালটনের কোটবাড়ি শো রুমে পাব কি না। এই আইটেমের যে কোনটি থেকে একটি পণ্য নিতে চাই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *